April 16, 2024
Breaking News

মহামারিতে বেসামাল শহরের বিভিন্ন শরীরচর্চা কেন্দ্র

📝সঞ্চিতা ভৌমিক, কলকাতা, Todays Story: দেশজুড়ে করোনা তার থাবা বসিয়ে চলেছে। দিন দিন আরও ভয়ঙ্কর রূপ নিচ্ছে। সাধারণ মানুষের জীবন আবারো ব্যাঘাত ঘটছে। তার হাত থেকে মুক্তি পেতে দেশের প্রতিটি স্তরের মানুষ ব্যস্ত হয়ে পড়ছে। মানসিক ভাবে যেমন মানুষকে ওষ্ঠাগত করে তুলেছে তেমনই কর্মজীবনে প্রভাব ফেলেছে বেশি। করোনার থাবায় শরীরচর্চা প্রায়ই বন্ধই হয়ে গেছে। জিম ছেড়ে মানুষ ঘরেই শরীরচর্চাতে মন দিয়েছে। শহরের অনেক জিম কর্তারা জানিয়েছেন তাঁরা আবারো এক কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে যাচ্ছেন। একটা ধাক্কা সামলে উঠতে না উঠতেই আবার একই ধাক্কার মুখোমুখি তারা। যেহেতু এখনো সরকার থেকে জিম বন্ধ করার নির্দেশ দেয়নি তাই তারা জিম খোলা রেখেছেন। কিন্তু অনেকেই ভয়ে জিমে আসছেন না। তার ফলে জিম চলার খরচটাও উঠছে না।

এরকমই একজন জিমের মালিক রাহুল বিশ্বাস। বেহালা বি জি প্লেস, অটো স্ট্যান্ড এর সামনেই তাঁর ফিটহলিক জিম। তিনি সাক্ষাৎকারে বলেছেন , যে গত বছর সরকার থেকে নোটিস জারি করায় তাঁরা জিম বন্ধ রেখেছিলেন, কিন্তু এ বছর এখনো এরকম কোন নোটিস পাননি। তাই তারা জিম খোলাই রেখেছেন। আগে দিনে ২বার পুরো জিম স্যানিটাইস করা হতো, এখন আরও বেশি বার জিম স্যানিটাইস করা হয়। একসঙ্গে ১০-১২ জনের বেশি মেম্বারকে জিমে আসতে অনুমতি দেওয়া হয় না। এছাড়া প্রতিটি সদস্য যাতে মাস্ক পরে, স্যানিটাইস করেন, নিজের তোয়ালে নির্দিষ্ট জায়গায় রাখেন সে বিষয়ে সব সময় নজর রাখেন। এছাড়া এই মহামারীর সময় যারা জিম আসছেন না তাদেরকে অনলাইনে প্রশিক্ষণ এর ব্যবস্থা করেছেন। বর্তমানে প্রায় ৭০ জন সদস্য জিমে আসেন। এবং প্রায় ৩০ জন সদস্য অনলাইনেই পরামর্শ নিচ্ছেন।

error: Content is protected !!